সিরাজগঞ্জের শহীদ এম মনসুর আলী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ২৫ কোটি টাকা দূর্নীতির ঘটনায় ইতিমধ্যেই তদন্ত শুরু করেছে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। এ তদন্ত শুরু হওয়ায় জনমনে স্বস্থিও ফিরে এসেছে। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, উক্ত হাসপাতাল নির্মানকালে ২৫ কোটি টাকা দূর্নীতির অভিযোগে ৩ সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা করেছে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

এ গঠিত কমিটির প্রধান স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো: জাহাঙ্গীর হোসেনসহ ৩ সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি বুধবার ওই হাসপাতালে আসেন। এ তদন্ত কমিটির অপর ২ সদস্য হলেন, একই মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব এসএম জাহাঙ্গীর আলম ও প্রধান হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা খন্দকার সাঈদ আসাদুজ্জামান। ওইদিন দিনভর প্রকল্প পরিচালকসহ ১৫ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছেন এ তদন্ত কমিটি। ওই হাসপাতাল নির্মাণকালে সাক্ষর জাল করে ভুয়া বিল দাখিল করে ও নির্মান কাজের বরাদ্দের ১০০ কোটির মধ্যে ২৪ কোটি ৯৬ লাখ ২২ হাজার টাকা আত্মসাত করা হয়েছে। এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকা সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানের কর্তৃপক্ষ বর্তমানে আত্মগোপনে রয়েছেন।

এ বিষয়ে শহীদ এম মনসুর আলী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের প্রকল্প পরিচালক কৃষ্ণ কুমার পাল সাংবাদিকদের জানান, সাক্ষর জাল করে ভুয়া বিল ভাউচার দেখিয়ে নির্মান বরাদ্দের উল্লেখিত টাকা আত্মসাত করেছে একটি চক্র। এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট থানায় মামলা হয়েছে এবং এ মামলা দুদকের কাছেও পাঠানো হয়েছে। সেইসাথে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের গঠিত কমিটি এ বিষয়টি তদন্ত করছেন বলে তিনি উল্লেখ করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.