নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

 

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে ১৫ বছর বয়সী এক তরুণীকে দলবেঁধে ধর্ষণের অভিযোগে তার সাবেক স্বামীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলা সদরের কোহিত গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। গ্রেপ্তার আজিজুল হক (৩০) ওই গ্রামের মৃত আব্দুস সাত্তারের ছেলে। এ বিষয়ে স্থানীয় ইউপি সদস্য আশরাফুল ইসলাম বাচ্চু বলেন, দুই বছর আগে পারিবারিক সম্মতিতে কোহিত গ্রামের আজিজুল হক একই গ্রামের ওই তরুণীকে বিয়ে করে। বনিবনা না হওয়ায় ৩ মাস আগে তাদের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। ওই সময় গ্রাম্য শালিসে আড়াই লাখ টাকা জরিমানাও দেয় আজিজুল হকের পরিবার। এ অবস্থায় দলবেঁধে ধর্ষণের অভিযোগ উঠায় আজিজুল হককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

 

তাড়াশ থানার ওসি শহিদুল ইসলাম জানান, বৃহস্পতিবার রাতে নির্যাতিত ওই তরুণী পাশের বাড়ি থেকে পানি আনতে যাওয়ার সময় একই গ্রামের আজিজুল হকসহ তিনজন তাকে তুলে নিয়ে যায়। এরপর তারা নির্যাতিত তরুণীকে একটি ঝুপড়ি ঘরে আটকে রেখে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। তরুণীর চিৎকার শুনে স্থানীয়রা রাতেই তাকে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে বাড়িতে নিয়ে যায়। ওসি আরও বলেন, সংবাদ পেয়ে শুক্রবার সকালে ওই তরুণীকে উদ্ধারের পর সিরাজগঞ্জ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। দুপুরে অভিযান চালিয়ে আজিজুল হককে গ্রেপ্তারের পর থানায় রেখে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। এ ঘটনায় তরুণীর বাবা বাদী হয়ে তিনজনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও অপহরণ আইনে মামলা করেছেন। বাকি দুই আসামিকে গ্রেপ্তারে চেষ্টা চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.